প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তা বাঁশখালীর মেয়ে সুমির মর্মান্তিক মৃত্যু

BanshkhaliTimesবাঁশখালী টাইমস: মাত্র ৩৪ বছর বয়সে না ফেরার দেশে চলে গেল প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের একাউন্টস সেকশনের কর্মকর্তা শারমিন আক্তার সুমি। তিনি বাঁশখালীর চাম্বল নিবাসী মরহুম মাস্টার শাহ আলমের দ্বিতীয় কন্যা। আজ বিকেল ৫ টায় নগরীর পার্কভিউ হাসপাতালে শ্বাসকষ্টে ভুগে ইন্তেকাল করেন। ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্না ইলাইহি রাজেউন। তিনি এক সপ্তাহ ধরে কভিড আক্রান্ত ছিলেন। গতকাল দ্বিতীয় সন্তান ডেলিভারির জন্য সিজার করা হয়েছে। এরপর থেকেই তাঁর শরীরের অবনতি দেখা যায়। নবজাতক শিশু বর্তমানে ইম্পেরিয়াল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাঁর প্রথম সন্তান সুবাহ’র বয়স মাত্র ৭।

আজ রাতে সাতকানিয়া তালগাওস্থ শ্বশুরবাড়িতে মরহুমার জানাজা ও দাফন সম্পন্ন করা হয়।

এদিকে শান্তশিষ্ট, অমায়িক চারিত্রিক বৈশিষ্ঠ্যের অধিকারী কর্মকর্তা সুমির মৃত্যু সংবাদে প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার, বাঁশখালীর চাম্বল ও সাতকানিয়ায় স্বজনদের মাঝে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের অফিশিয়াল পেজে তাঁর শোকবার্তা প্রকাশ পেলে অসংখ্য শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারী গভীর শোক ও মাগফেরাত কামনা করেন।
তাঁর আকস্মিক মৃত্যুতে বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন তাঁর স্বজনেরা।

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.