শিক্ষাপদ্ধতির উপর অভিজ্ঞতা নিতে মুবিনুল ইসলামের ইউরোপ সফর

শিক্ষাপদ্ধতির উপর অভিজ্ঞতা নিতে মুবিনুল ইসলামের ইউরোপ সফর

বাঁশখালী টাইমস প্রতিবেদক: বিশ্বমানের শিক্ষাপদ্ধতি, শিক্ষার পরিবেশ ও স্কুল পর্যায়ে ফলপ্রসূ শিক্ষাব্যবস্থার উপর অভিজ্ঞতা অর্জন করতে ইউরোপের কয়েকটি দেশ সফরে যাচ্ছেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ বাঁশখালীর কৃতি সন্তান মুবিনুল ইসলাম।

ইউরোপ সফরের অংশ হিসেবে তিনি ইতালি, জার্মানি, হাঙ্গেরি, সেকোস্লোভিয়া প্রভৃতি দেশসমূহের উদ্দেশ্যে আগামী সপ্তাহে যাত্রা করবেন।

ইউরোপের বিভিন্ন স্বনামধন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষাপদ্ধতি, মান, বৈজ্ঞানিক শিক্ষা সুবিধা, অত্যাধুনিক ল্যাব সহ বিভিন্ন শিক্ষাসহায়ক প্রযুক্তির কৌশল ও প্রয়োগ সম্পর্কে সরেজমিনে পরিদর্শন করে অভিজ্ঞতা নিবেন বলে জানান তিনি। এর পাশাপাশি তিনি সেদেশ সমূহের উল্লেখযোগ্য দর্শনীয় স্থান, ঐতিহাসিক স্থাপনা ও পর্যটনকেন্দ্র ঘুরে দেখবেন।

এ প্রসঙ্গে আলাপকালে তিনি বাঁশখালী টাইমসকে বলেন- ‘বাঁশখালীতে একটি বিশ্বমানের স্কুল প্রতিষ্ঠা করতে যাচ্ছি, ইনশা আল্লাহ। এটি আমার দীর্ঘদিনের স্বপ্ন ছিল। বাংলা, ইংরেজি, আরবি এই তিন ভাষার উপর ফোকাস রেখে স্কুলটি হবে বিশ্বমানের একটি অনন্য পাঠশালা। এ লক্ষ্যে ইউরোপের দেশসমূহের শিক্ষাব্যবস্থা সম্পর্কে অভিজ্ঞতা অর্জন করতেই মূলত এই সফর।’

শিক্ষা ব্যবস্থা সম্পর্কে তাঁর চিন্তাধারা নিয়ে প্রশ্ন করলে তিনি বলেন- প্রশিক্ষিত শিক্ষক যারা হবেন বিশ্বমানের। শিক্ষার্থীদের ভেতর হতে সুপ্ত প্রতিভা ও দক্ষতা খুঁজে বের করে
সে লক্ষ্যে তাঁদের ভবিষ্যৎ বিনির্মাণে সহায়তা করা।

মুখস্থশিক্ষাকে তিনি শিক্ষাব্যবস্থার ‘ক্যান্সার’ অভিহিত করে বলেন- আমাদের শিক্ষাব্যবস্থা উদ্ভাবন, কর্মমুখী ও ব্যবহারিক হওয়ার পরিবর্তে হয়ে গেছে মুখস্থ ও জিপিএ ভিত্তিক। তিনি শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ, বৈজ্ঞানিক প্রযুক্তির ব্যবহারের পাশাপাশি শিক্ষকদের মানসম্মত বেতন ভাতা প্রদানের উপরও গুরুত্ব দেন।

উল্লেখ্য, অধ্যাপক মুবিনুল ইসলামের স্ত্রী শিরিন আক্তারও উক্ত সফরে সাথে থাকবেন। তিনি UNHCR এর জাতীয় কর্মকর্তা হিসেবে আগামী ৯-১৩ জুলাই হাঙ্গেরিতে অনুষ্ঠিতব্য প্রশিক্ষকদের একটি প্রশিক্ষণ কর্মশালায় অংশ নিবেন।

অধ্যাপক মুবিনুল ইসলামের বাড়ি বাঁশখালীর চেচুরিয়া গ্রামে। তিনি বর্তমানে ঢাকার একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ফ্যাকাল্টি মেম্বার, দর্পণ গ্রুপের পরিচালক, প্রভিডেন্স মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের পরিচালক, লফটি ল্যাবরেটরি স্কুল, ঢাকার পরিচালক, অনুভব ব্যবসায়ী সমবায় সমিতির চেয়ারম্যান ও সমাধান শিক্ষা উন্নয়ন ফাউন্ডেশনের পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন।

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.