এবার কারাগারেই ঈদ করবেন খালেদা জিয়া!

বাঁশখালী টাইমস: এবার ঈদুল ফিতরে পরিবার ছাড়াই কারাগারে ঈদ করবেন খালেদা জিয়া! প্রতিবার পরিবার ছাড়া ঈদ করলেও প্রতিবছর ঈদের দিন নেতা-কর্মীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন খালেদা জিয়া। ঈদের দিন রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে বিশিষ্ট নাগরিক, বিভিন্ন দেশের কূটনীতিক ও সর্বসাধারণের সঙ্গে ঈদের কুশল ও শুভেচ্ছা বিনিময় করেন বিএনপি নেত্রী। আর রাতে ভাইয়ের পরিবারের সদস্যরা আসেন তার সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করতে। ঈদের দিন সকালে এসেও তারা বিএনপি নেত্রীকে সঙ্গ দিয়ে যান।
কিন্তু এবার আর তা হচ্ছে না, কারাগারেই ঈদ করতে হবে বেগম জিয়াকে! হয়তো কিছু নেতাকর্মী দেখা করতে যাবেন তার সাথে, কিন্তু মুক্তভাবে ঈদ করা হবে না এবার।

২০০৭ সালের এক-এগারোর রাজনৈতিক পট পরিবর্তনের পর কারাগার থেকে মুক্তি পেয়ে চিকিৎসার জন্য বড় ছেলে তারেক রহমান পরিবার নিয়ে যান লন্ডনে। এখনো সেখানেই থাকছেন তিনি। ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকো সপরিবারে থাকতেন মালেয়শিয়ায়। আর বিএনপি নেত্রী একা বাংলাদেশে। গত ১১ বছরের মধ্যে প্রথম আট বছরই খালেদা জিয়া ও তার দুই ছেলের পরিবার ঈদ উদযাপন করে আলাদা। প্রয়াত রাষ্ট্রপতি ও বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের পরিবারের এই তিন অংশ ঈদ করে আসছে তিন জায়গায়। এর মধ্যে আরাফাত রহমান ২০১৫ সালের ২৪ জানুয়ারি মালেয়শিয়ায় মৃত্যুবরণ করেন।

তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে সংসদ ভবন এলাকার বিশেষ কারাগারে আটক থাকার পর ২০০৮ সালের ১১ সেপ্টেম্বর মুক্তি পান খালেদা জিয়া। এর মধ্যে ২০০৭ সালের দুটি ঈদ কারাগারে কেটেছে তার। পরে তারেক রহমান প্যারোলে মুক্তি নিয়ে চিকিৎসার জন্য যুক্তরাজ্যে যান। সেখানে সঙ্গে আছেন স্ত্রী জোবাইদা রহমান ও মেয়ে জাইমা রহমান।

এদিকে আরাফাত রহমান কোকোও ওই সময়ে প্যারোলে মুক্তি পেয়ে থাইল্যান্ড যান। পরে তার স্ত্রী শর্মিলা রহমান, দুই মেয়ে জাফিয়া রহমান ও জাহিয়া রহমানকে নিয়ে মালেয়শিয়ায় যান। সেখানে গত বছর মৃত্যুবরণ করেন তিনি। রাজধানীর ঢাকার বনানী কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

পরিবারের তিন অংশ তিন স্থানে থাকায় ১৭টি ঈদ আপনজন ছাড়াই উদযাপন করেছেন বিএনপি নেত্রী। পরিবারের তিন অংশ তিন জায়গায় ঈদ করলেও ঈদের দিনে খালেদা জিয়ার সঙ্গে টেলিফোনে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন তার ছেলের পরিবারের সদস্যরা। এবার হয়তো সেটি আর সম্ভব হচ্ছে না কারাগারে থাকার কারণে!

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.