টেস্টে তামিমের অষ্টম শতক

ক্রীড়াডেস্ক : টেস্টে পেটাচ্ছেন ‘ওয়ান ডে’ স্টাইলে! এরই নাম তামিম! তামিম ইকবালকে দেখে কে বলবে! মইন আলিকে দারুণ এক ইনসাইড আউট বাউন্ডারিতে ৯৩ থেকে ৯৭, পরের বলেই হুবহু শটে তিন অঙ্কে! মানে ১০১! আবারও ইংল্যান্ড, তামিমের ব্যাটে আরও একটি মুকুট।

মিরপুর টেস্টের প্রথম দিনেই অসাধারণ এক সেঞ্চুরি উপহার দিলেন তামিম ইকবাল। বাংলাদেশের হয়ে সবচেয়ে বেশি সেঞ্চুরির রেকর্ডকে সামনে এগিয়ে নিলেন আরেকটি ধাপ। এই নিয়ে তামিমের এটি অষ্টম টেস্ট সেঞ্চুরি। ৬টি সেঞ্চুরি করে বাংলাদেশের হয়ে দুইয়ে আরেক কিংবদন্তি মোহাম্মদ আশরাফুল। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তামিমের এটি তৃতীয় শতক। ইংলিশদের বিপক্ষে ৬ টেস্টের প্রতিটিতেই অন্তত এক ইনিংসে পঞ্চাশ ছাড়িয়েছেন তামিম। ১১ ইনিংসে ৩টি শতকের পাশে অর্ধশতক ৫টি। গড় ৬৩.২৭!

আজকের সকালে তামিমের শুরুটা ছিল দারুণ সতর্ক। তবে থিতু হওয়ার পর বেরিয়েছেন খোলস ছেড়ে, খেলেছেন দারুণ সব শট। প্রথম রানের দেখা পেতেই লেগেছিল ২০ বল। সেখান থেকে অর্ধশতক ছুঁয়েছেন ৬০ বলে। এক পর্যায়ে ১২ বলের মধ্যে মেরেছেন ছয়টি চার! লাঞ্চের সময় অপরাজিত ছিলেন ৬৮ রানে। লাঞ্চের পর সেঞ্চুরিতে পৌঁছে যান দ্রুতই। মইনের বলে ওই টানা দুই বাউন্ডারিতে সেঞ্চুরি ১৩৯ বলে। আউট হয়ে গেছেন অবশ্য সেঞ্চুরির পর পরই। দুর্দান্ত সব শটের ইনিংসটি শেষ হলো শট না খেলে। মইন আলির বলে এলবিডব্লিউ ১০৪ রানে। মুমিনুল হকের সঙ্গে দ্বিতীয় উইকেটে গড়েছেন ১৭০ রানের দারুণ জুটি। সেঞ্চুরিটা আরও বড় করতে পারেননি তামিম। তবে বাংলাদেশকে এনে দিয়েছেন শক্ত ভিত।

জয়তু তামিম ইকবাল খান।

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.