বৈলছড়ীতে চেয়ারম্যানের মামলায় মেম্বারসহ ২ জনের মুক্তিলাভ

মুহাম্মদ মিজান বিন তাহের: বৈলছড়ী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ সভাপতি কফিল উদ্দীনের বাড়ীতে অগ্নিসংযোগের ঘটনায় আটক ৩ জনের মধ্যে আজ ২ জন জামিনে মুক্তি পেয়েছেন। তারা হলেন ইউপি সদস্য দিদারুল হক ও আবুল কালাম।

উল্লেখ্য, সাঙ্গুর উপর অবস্থিত তৈলারদ্বীপ সেতুর টোল আদায় বন্ধ নিয়ে বিগত একমাস ধরে স্থানীয় সাংসদ মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী সমর্থিত ইউপি চেয়ারম্যান কফিল উদ্দিন ও জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক সিটি মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরীর সমর্থিত সিএনজি-টেক্সী পরিবহন শ্রমিকদের মধ্যে দ্বন্ধ চলে আসছিল। সেই দ্বন্ধকে কেন্দ্র করে গত ২৮ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার গভীর রাতে বৈলছড়ি ইউপি চেয়ারম্যানের কাচারী ঘরে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটিয়েছিল দুর্বৃত্তরা।

এ ঘটনার ৫ দিন পর চেয়ারম্যান বাদী হয়ে একই এলাকার দুই ইউপি সদস্যসহ ১৬ জনকে এজাহার নামীয় ও অজ্ঞাতনামা ২০-২৫ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন। মামলার প্রেক্ষিতে বিজ্ঞ আদালত রবিবার জামিন শুনানী শেষে ৩ জনকে জেল হাজতে প্রেরণ করলেও অপরাপর আসামীকে জামিনে মুক্তি দেন।
অবশেষে আজ ১৯ অক্টোবর বুধবার চট্টগ্রাম আদালত থেকে বৈলছড়ি ৬ নং ওয়ার্ড়ের ইউপি সদস্য দিদারুল হক ও আবুল কালামের জামিন লাভ করে।
জামিন পেয়ে বাঁশখালীর বৈলছড়ীতে আসলে এলাকার শত শত ছাত্রলীগ, যুবলীগ, আওয়ামীলীগের নেতা কর্মীরা মিছিল সহকারে তাদেরকে ফুলের তোড়া দিয়ে বরণ করে নেন।

Prottasha-Coaching

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.