জেলা পরিষদ নির্বাচনে সদস্য পদে বাঁশখালীর ( Banshkhali ) ৬ জন প্রার্থী

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি : আগামী ২৮ ডিসেম্বর চট্টগ্রামসহ সারাদেশে জেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদে ২ জন, সদস্য পদে মহানগরীসহ চট্টগ্রামের ১৪ উপজেলার ১৫টি ওয়ার্ডে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন ৭৮ জন। এর মধ্যে সাধারণ সদস্য পদে ৬৭ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১১ জন। জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ খোরশেদ আলম জানান, জেলা পরিষদ নির্বাচনে অংশ নিতে ইতোমধ্যে চেয়ারম্যান পদে এম এ সালাম ও নারায়ণ রক্ষিত নামের দুই ব্যক্তি মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন। বৃহস্পতিবার মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষ দিন। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান ও সদস্য পদে প্রার্থীরা বৃহস্পতিবার (১ ডিসেম্বর) মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করে  জমা দিয়ছেন। ৩ ও ৪ ডিসেম্বর মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই হয়েছে এবং প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ দিন ১১ ডিসেম্বর।  প্রার্থীরা প্রতীক বরাদ্দ পাবেন ১২ ডিসেম্বর। নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ নির্বাচনে উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের সদ্য বিদায়ী প্রশাসক মো. আবদুস সালাম এবং নারায়ণ রক্ষিত নামের একজন স্বতন্ত্র প্রার্থী মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন। মহানগরীসহ চট্টগ্রামের ১৪ উপজেলার নির্ধারিত ১৫টি ওয়ার্ডে সাধারণ সদস্য পদে মনোনয়ন সংগ্রহ করেছেন ৬৭ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন ১১ জন প্রার্থী। এর মধ্যে মিরসরাই ১ নম্বর ওয়ার্ডে শুধুমাত্র শেখ আহমদ, সীতাকুণ্ড-মিরসরাই ২ নম্বর ওয়ার্ডে মো. মহিউদ্দিন, আ ম ম দিলশাদ, জিতেন্দ্র প্রসাদ নাথ মন্টু ও মো. মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী। সন্দ্বীপ ৩ নম্বর ওয়ার্ডে দেলোয়ার হোসেন, মো. হুমায়ুন কবির, আবু হায়দার, মো. জাফর আলম, ফোরকান উদ্দিন আহমেদ, আকতার খান ও এডভোকেট মো. সাহাবুদ্দিন মাহমুদ। নগর ও হাটহাজারী ৪ নম্বর ওয়ার্ডে মো. আবুল কদর, জসীম উদ্দিন শাহ্, মো. সরওয়ার, জাফর আহমদ, শামসুল আলম চৌধুরী, মো. নুরুল হুদা ও কাজী মোহাম্মদ আলমগীর। হাটহাজারী ও ফটিকছড়ি ৫ নম্বর ওয়ার্ডে আসাব উদ্দিন, সৈয়দ সাইফুদ্দৌলা, মো. শাহনেওয়াজ চৌধুরী, মো. জালাল হোসেন, মো. শওকত আলম চৌধুরী, ও এইচ এম আলী। ফটিকছড়ি ৬ নম্বর ওয়ার্ডে ড. মাহমুদ হাসান, আহমদুর রহমান চৌধুরী, মো. রেজাউল, মো. গোলাম কিবরিয়া, মো. শফিউল আলম, মো. আমান উল্লাহ ও মো. বেলাল উদ্দিন। রাউজান ৭ নম্বর ওয়ার্ডে শুধুমাত্র কাজী আব্দুল ওহাব। রাঙ্গুনিয়া ৮ নম্বর ওয়ার্ডে স্বজন কুমার তালুকদার, কামরুল ইসলাম চৌধুরী, মো. জামাল উদ্দিন মোস্তফা, তড়িৎ কান্তি দে ও মোহাম্মদ মহিউদ্দিন। বোয়ালখালী-পটিয়া ৯ নম্বর  ওয়ার্ডে মনসুর আহমদ, বোরহান উদ্দিন, মো. আবদুল ওয়াদুদ ও মোহাম্মদ ইউনুছ। পটিয়া ১০ নম্বর ওয়ার্ডে আবু মোহাম্মদ মহিউদ্দিন, প্রদীপ কুমার দাশ, দেবব্রত দাশ, মোজাহেরুল আলম চৌধুরী, ও মো. আবুল কালাম আজাদ চৌধুরী।  চন্দনাইশ-পটিয়া ১১ নম্বর ওয়ার্ডে আবু আহমদ চৌধুরী, শিহাব উদ্দিন, ও মোহাম্মদ আবুল কালাম। আনোয়ারা-বাঁশখালী ১২ নম্বর ওয়ার্ডে শুধুমাত্র এস এম আলমগীর। বাঁশখালী ( Banshkhali ) ১৩ নম্বর ওয়ার্ডে অধ্যাপক আব্দুল গফুর, লায়ন মো. আমিরুল হক, মৌলভী নুর হোসেন, জাকের হোসেন চৌধুরী, শেখ ফখরুদ্দিন চৌধুরী ও কাজিম মোস্তফা চৌধুরী। সাতকানিয়া ১৪ নম্বর ওয়ার্ডে মো. নজরুল ইসলাম, বশির আহমদ চৌধুরী, খাইর আহমদ ও মো. জসীম উদ্দিন এবং লোহাগাড়া-সাতকানিয়া ১৫ নম্বর ওয়ার্ডে আনোয়ার কামাল, আক্তার কামাল, জসীম উদ্দিন ও নুরুল আবছার চৌধুরী সাধারণ সদস্য পদে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন।

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.