BanshkhaliTimes

গন্ডামারায় গড়ে উঠবে অর্থনৈতিক অঞ্চল: বেপজা উপ সচিব

BanshkhaliTimes

মুহাম্মদ মিজান বিন তাহের, বাঁশখালী টাইমস: বাঁশখালীর গন্ডামারায় চায়না সেবকো এইচটিজি এবং এস. আলম গ্রুপের যৌথ উদ্যোগে স্থাপিত এস. এস পাওয়ার প্লান্টের কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্র পরিদর্শন করেন, বাংলাদেশ রপ্তানি প্রক্রিয়াকরণ এলাকা কর্তৃপক্ষ (বেপজা) উপ সচিব মুহাম্মদ আবু হেনা মোস্তফা কামাল।

বুধবার (১৩ অক্টোবর ) বাঁশখালীর কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্র পরিদর্শন কালে আরো উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ রপ্তানি প্রক্রিয়াকরণ এলাকা কর্তৃপক্ষ (বেপজা) সিনিয়র সহকারী সচিব মোঃ কাইচার খসরু, এস আলম কতৃর্পক্ষের পরিচালক (অর্থ) ও নির্বাহী পরিচালক সুব্রত কুমার ভৌমিক, এস আলম গ্রুপের চীফ অব এসটেইট মো: মোস্তান বিল্লাহ আদিল, প্রজেক্ট কোর্ডিনেটর অবঃ মেজর রেজাউর করিম, এস এস পাওয়ার প্রজেক্ট কোর্ডিনেটর মো: ফারুক, সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো: মাজাহারুল ইসলাম, বাঁশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি (তদন্ত) আজিজুল হক, গন্ডামারা ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মো: লেয়াকত আলী, ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক মো: আবু আহমদ প্রমুখ।

এ সময় প্রস্তাবিত অর্থনৈতিক অঞ্চল ১ চর বড়ঘোনা ও পশ্চিম বড়ঘোনা বেঁড়িবাধের ভিতরে ও বাইরে এবং প্রস্তাবিত অর্থনৈতিক অঞ্চল ২ গন্ডামারা মৌজা বলদার চর এলাকা পরিদর্শন করেন।

পরিদর্শন শেষে গন্ডামারা ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ লেয়াকত আলী বলেন, এ প্রকল্প কোন ব্যক্তির নয়, এটি একটি চীন বাংলাদেশ সরকারের যৌথ প্রজেক্ট। এ প্রকল্পটি বাস্তবায়ন হলে বাঁশখালীসহ পুরো দক্ষিণ চট্টগ্রামের সাধারণ মানুষের উপকার হবে। গন্ডামারা তথা বাঁশখালীবাসীর জীবনের পরিবর্তনের জন্যই এ প্রকল্প। প্রকল্পটি বেসরকারী পর্যায়ে হলে চীন বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ সম্পদ। এই প্রকল্পের পাশাপাশি অর্থনৈতিক অঞ্চল হিসেবে গড়ে উঠবে আমাদের গন্ডামারা এলাকা।

পরিদর্শন কালে অতিথিরা বলেন, বর্তমান সরকার সারা দেশে বিদ্যুৎ ব্যবস্থা উন্নয়নে অনেক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। তারাই ধারাবাহিকতায় চীন-বাংলাদেশের যৌথ উদ্যোগে এই প্রকল্প। এটা বাস্তবায়ন হলে এদেশের বিদ্যুৎ সমস্যা অনেকটা লাঘব হবে বলে তারা আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

Spread the love

Leave a Comment

Your email address will not be published.