ক্যান্সার আক্রান্ত শর্মিষ্ঠাকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

শর্মিষ্ঠা দে। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজতত্ত্ব বিভাগের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী। অত্যন্ত মেধাবী একজন ছাত্রী। সব ঠিকঠাকই চলছিল। মনে মনে কত শত-হাজার স্বপ্ন বুনে চলছিল সে। কিন্তু ভাগ্যের নির্মম পরিহাস! এখন থেকে ২ মাস পূর্বে তার শরীরে দুরারোগ্য ব্যাধি ‘ব্লাড ক্যান্সার'(লিউকিমিয়া) ধরা পড়ে।

পরিবারের সদস্যরাও গাফেলতি না করে উন্নত চিকিৎসার লক্ষ্যে ভারতে নিয়ে যাওয়ার জন্য পাসপোর্ট করার কাজ শুরু করে দিলেন। এখানেও বিধিবাম! যেদিন পাসপোর্ট হাতে পেলেন সেদিনই শর্মিষ্ঠা দে আচমকা অসুস্থ হয়ে পড়েন। দুর্ভাগ্য যেন স্বপ্নবাজ মেয়েটার পিছুই ছাড়ছিল না। তারপর তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। সেখানে তার চিকিৎসা চলতে থাকে। কিন্তু অবস্থার পরিবর্তন না হওয়ায়, ২৪ শে আগষ্ট রাত সাড়ে ১২ টার দিকে তাকে ঢাকার উদ্দেশ্যে পাঠানো হয়। এখন সে ঢাকার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিতসাধীন আছে। ভারতে নিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি চলছে। শারীরিক অবস্থা আরেকটু ভালো হলেই ভারতে নিয়ে যাওয়া হবে। তার চিকিৎসার জন্য ২৫-৩০ লক্ষ টাকা লাগবে। এই বিশাল অংকের টাকার পরিমাণ বহন করা শর্মিষ্ঠার পরিবারের পক্ষে অসম্ভব।
আমরা কি পারি না এরকম একটা মেধাবী, স্বপ্নবাজ মেয়েকে তার আগের অবস্থানে ফিরিয়ে দিতে? আমরা কি পারি না তাকে সুস্থ করে তার মা-বাবার কাছে ফিরিয়ে দিতে? আমরা কি পারি না তাকে তার স্নেহের ভাইয়ের কাছে ফিরিয়ে দিতে? অবশ্যই পারি। শুধু একটু চেষ্টার দরকার, আর কিছু না। ২টা মিনিট শর্মিষ্ঠা দে’র জায়গায় একবার নিজের আপন কাউকে ভেবে দেখুন তো। হতে পারে সে আপনার বোন, মা, স্ত্রী। রোগ তো আগামবার্তা দিয়ে আসে না। যদি আপনার আপন কেউ হয় তখন আপনি কি করতেন? চুপ করে বসে থাকতেন? থাকতেন না। আপনার সর্বোচ্চ চেষ্ঠা করতেন আপন মানুষটাকে বাঁচানোর। আমরা তো মানুষ। একজনের পাশে আরেকজন দাঁড়াবো এটাই তো আমাদের মানবিক দায়িত্ব। আমরা যদি সবাই মিলে সাহায্যের হাত বাড়াই তাহলে শর্মিষ্ঠা দে আবার তার সেই বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে হাঁটবে। সে তার স্বপ্নগুলো পূরণের সুযোগ পাবে। আমরা তো আমাদের সাধ্যমত সর্বোচ্চ সাহায্য করে শর্মিষ্ঠা কে তার স্বপ্নগুলো পূরণের সুযোগ করে দিতে পারি। শর্মিষ্ঠা সুস্থ হয়ে যাওয়ার খবর যখন আপনি পাবেন তখন আপনি নিজে নিজেই একটা প্রশান্তি অনুভব করবেন।

পরিশেষে, আপনাদের সকলের কাছে করজোড়ে অনুরোধ করছি আপনারা আপনাদের সাধ্যমতো সর্বোচ্চটা দিয়ে শর্মিষ্ঠাকে সাহায্য করুন। আপনাদের সম্মিলিত সাহায্যে শর্মিষ্ঠা বেঁচে যাবে। ক্যান্সারের কাছে আমরা হারতে দিতে পারি না শর্মিষ্ঠাকে। সেই শক্তি আমাদের আছে। শর্মিষ্ঠা অবশ্যই জিতবে, জিতবো আমরাও।
দয়া করে এগিয়ে আসুন সবাই।

সাহায্য পাঠানোর ঠিকানা:
বিকাশ একাউন্ট:
আবির: 01981646858(personal)
সুমন: 01824571272(personal)
তামিম: 01924273336(personal)
ব্যাংক একাউন্ট নাম্বার: 111712116989987(শর্মিষ্ঠা’র আন্টি, সুবর্ণা দে)
মার্কেণ্টাইল ব্যাংক,জুবিলী রোড শাখা।
( প্রেস বিজ্ঞপ্তি)

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.